ফুলপুরে দরিদ্র প্রবীণদের বয়স্ক ভাতা দিলো গ্রামাউস

Phulpur.jpg

এম এ মান্নান :
ময়মনসিংহের ফুলপুরে দরিদ্র প্রবীণদেরকে বয়স্ক ভাতা, ছাতা, ওয়াকিং স্টিক, হাই কমোড ও হুইল চেয়ার দিলো গ্রামীণ মানবিক উন্নয়ন সংস্থা (গ্রামাউস)। পল্লী কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশন (পিকেএসএফ)’র আর্থিক সহযোগিতায় ২৯ জুন শনিবার বিকালে উপজেলার নগুয়া গ্রামস্থ গ্রামাউসের সমৃদ্ধ শাখায় এসব অনুদান বিতরণ করা হয়। গ্রামীণ মানবিক উন্নয়ন সংস্থা উহা বাস্তবায়ন করে। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ফুলপুর উপজেলা চেয়ারম্যান আতাউল করিম রাসেল। গ্রামাউসের নির্বাহী পরিচালক ও জেলা পরিষদের সদস্য আব্দুল খালেকের সভাপতিত্বে এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেবুন নাহার শাম্মী, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আনিছুর রহমান আনিছ, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রোকেয়া পারভীন লাকী, ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, ফুলপুর ইউপি মেম্বার এসোসিয়েশনের সভাপতি রাসেল, নগুয়া গ্রামের মুরুব্বি ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি জয়নাল হাজারী প্রমুখ।
অনুদান হিসেবে ২০টি ওয়াকিং স্টিক, ২০টি ছাতা, ৭৫ জন দরিদ্র প্রবীণকে বয়স্ক ভাতা, ২০টি হাই কমোড ও ২টি হুইল চেয়ার প্রদান করা হয়। গ্রামাউস পরিচালক মোঃ ফজলুর রহমানের উপস্থাপনায় বক্তব্যে প্রবীণ মুরুব্বি জয়নাল হাজারী বলেন, এই প্রবীণ মুরুব্বিরারে গ্রামাউসের নির্বাহী পরিচালক আব্দুল খালেক সময় সময় ডাইক্যা ডাইক্যা লইয়া বয়। হে আমরারে ভালা ফায়। এতে আমরা খুশি। আমরারে যে সম্মান গ্রামাউস করতাছে এইডা আমরা ভুলতারতাম না। তিনি আরো বলেন, বিভিন্ন সময় টিউকলসহ বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা আমরা পাইতাছি। কেউ মইরা গেলে হের পরিবাররেও এই গ্রামাউস দান করে। সভাপতির বক্তব্যে গ্রামাউসের নির্বাহী পরিচালক আব্দুল খালেক অসহায় মানুষকে দান ও সহায়তা করে স্বাবলম্বী করে তোলার বাস্তব গল্প শোনান। তিনি বলেন, প্রতি বছর ১০০ করে ল্যাট্রিন দেওয়া হয়। ১০ জন ভিক্ষুককে এক লাখ করে টাকা দেওয়া হয়েছিল। বর্তমানে তারা সবাই স্বাবলম্বী। তিনি বলেন, ফুলপুর ইউনিয়নের ৬৫৩৫টি পরিবারে ১৭৩২ জন প্রবীণ মুরুব্বি রয়েছেন। পর্যায়ক্রমে প্রতিটি পরিবারকে স্যানিটেশনের আওতায় আনা হবে।
এরপর কংশ নদী খনন, ভটখালীতে সুইচ গেইট স্থাপন, কংশ ভাঙনের কবল থেকে বাঁশতলা স্কুল রক্ষা ও ঠাকুর বাখাইয়ে একটি মিনি স্টেডিয়াম গড়ে তোলার পরিকল্পনা তুলে ধরে প্রধান অতিথি উপজেলা চেয়ারম্যান আতাউল করিম রাসেল বলেন, আলোকদী গ্রামের খেজুর গাছতলা থেকে নগুয়া বাজার পর্যন্ত একটি রাস্তা পাকাকরণ করা হবে। এতে ওইসব এলাকার মানুষের ইউনিয়ন কাউন্সিলে যাতায়াতসহ ব্যাপক সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি পাবে। গ্রামাউসের কাজের প্রশংসা করে তিনি বলেন, গ্রামাউস আধুনিক ও ডিজিটাল চিন্তা চেতনা নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে। আমরা আমার আমার না করে আমাদের হয়ে দেশের জন্য কাজ করতে পারলে অনেক কাজ হবে। বিশেষ অতিথি উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেবুন নাহার শাম্মী বলেন, এলাকা উন্নয়নে সরকারের সহযোগি প্রতিষ্ঠান হিসেবে গ্রামাউস অত্যন্ত দক্ষতার সাথে কাজ করে যাচ্ছে। গ্রামাউসের কাজে সন্তোষ প্রকাশ করে তিনি বলেন, অটিস্টিক শিশু ও প্রতিবন্ধীদের উন্নয়নেও গ্রামাউসকে এগিয়ে আসতে হবে।

Share this post

PinIt
mamannan537

mamannan537

I'm M A Mannan. I'm a founder principal of Excellent School & Madrasah It's new name is Darul Ihsan Qasimia (Excellent) Madrasah. It's situated at Phulpur in Mymensingh. I'm also a journalist. I write in The Daily Tathyadhara, The Dainik Bangladesher Khabor and Bangladesh Pratidin.

scroll to top