‘১০০ বছর পর ফুলপুর’ শীর্ষক কর্মশালা

Phulpur-Pic-100.jpg

এম এ মান্নান :
ময়মনসিংহের ফুলপুরে ‘১০০ বছর পর ফুলপুর’ শীর্ষক এক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ মঙ্গলবার বেলা আড়াইটার দিকে ফুলপুর উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে উপজেলা মাস্টার প্ল্যান প্রণয়ণ শীর্ষক ওই কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ময়মনসিংহ জেলা প্রশাসক মিজানুর রহমান।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ফুলপুর উপজেলা চেয়ারম্যান আতাউল করিম রাসেল, মেয়র আমিনুল হক, ফুলপুর ওসি ইমারত হোসেন গাজী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা এম এ হাকিম সরকার, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য শাহ কুতুব চৌধুরী,উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আনিছুর রহমান, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রোকেয়া পারভীন লাকি প্রমুখ। কর্মশালায় সভাপতিত্ব করেন ফুলপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ সাইফুল ইসলাম।
এতে উপস্থিত অতিথিদের ১২টি গ্রুপে বিভক্ত করে স্বাস্থ্য, যোগাযোগ, শিক্ষা, হাটবাজার, বিনোদন ও পর্যটনসহ ১২টি বিষয়ের উপর আগামী ১০০ বছর পর ‘কেমন দেখতে চাই ফুলপুর’ এর একটি লিখিত রূপরেখা তৈরি করা হয়। এ রূপরেখা সরকারের উচ্চ পর্যায়ে সুপারিশ আকারে প্রেরণ করা হবে বলে জানান জেলা প্রশাসক।
কর্মশালার উদ্দেশ্য ছিল বিভিন্ন বিষয়ে ময়মনসিংহ জেলার উন্নয়ন পরিকল্পনা প্রণয়নে নাগরিকদের সম্পৃক্ত করা। কর্মশালায় উপজেলার নানা শ্রেণী পেশার মানুষ অংশগ্রহণ করে তাদের পরিকল্পনার কথা জানিয়েছেন ।

তবে দাওয়াত না পাওয়ায় কিছু ছোটখাটো সাংবাদিকসহ বেশ কিছু মানুষ এ মহতি কর্মশালায় যোগদান করতে পারেননি। না পেরে তারা ক্ষোভ ও দু:খ প্রকাশ করেছেন বলে জানা গেছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তারা ওই ক্ষোভ প্রকাশ করেন। ‘আগামী ১০০ বছর পর কেমন দেখতে চাই ফুলপুর’ এ বিষয়ে বুদ্ধি পরামর্শ দেওয়ার অধিকার যদিও ছোটদেরও রয়েছে তবু ক্ষোভের পিছনে এটা মুখ্য নয় বরং এমন একটি ঐতিহাসিক কর্মশালায় উপস্থিত থেকে কালের স্বাক্ষী হওয়াটাই ছিল মুখ্য বিষয়।

Top