ক্ষণিকালয়

Khanikaloy.jpg

নাজিম উদ্দিন
সময়ের অভাবে প্রায় ৩ বছর ধরে শ্বশুড় বাড়ি যাওয়া হয় না। বড় ভাবী মোবাইলে বলেন, গ্রামের বাড়িতে নতুন ঘর করেছি। তুমি তো এসে দেখনি । শহর থেকে বাড়িতে অাসছি। তুমি অবশ্যই অাসবে । উনার কথা মত ১৬ অক্টোবর ২০১৮ মঙ্গলবার স্বপরিবারে ফুলপুর উপজেলার বওলা গ্রামে শ্বশুড় বাড়িতে বেড়াতে যাই। দুপুরে খাবার খেয়ে একটু ঘুরাফেরা করেই বিদায় নেয়ার পালা। এ সময় হঠাৎ দেখি নবনির্মিত ঘরটির নাম ক্ষণিকালয়। এক সময় অনেক গেলে খেলেও বাড়িটি এখন অামারও ক্ষণিকালয়।
—– লেখক, দৈনিক যুগান্তরের ফুলপুর প্রতিনিধি, সাপ্তাহিক ফুলতারা পত্রিকার সম্পাদক, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও ফুলপুর প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি।
‘নাজিম ভাইয়ের শ্বশুড় বাড়ি আমি গিয়েছি। তার শ্বশুড়বাড়ির লোকেরা প্রচুর সম্পদের মালিক। ময়মনসিংহ জিলা স্কুলের একেবারে নিকটে তার সহধর্মিনীর বড়ভাইয়ের তিনতলা নিজস্ব বাড়ি রয়েছে। ওই ভদ্রলোকই ঈদ পার্বনে গ্রামে এসে ক্ষণিকের জন্য বসতে নির্মাণ করেছেন ক্ষণিকালয়।এছাড়া তিনি একজন আল্লাহওয়ালা মানুষ। সম্ভবত: এও হতে পারে যে, ক্ষণিকালয় বলতে এই অস্থায়ী দুনিয়াকে বুঝিয়েছেন। যেহেতু এটা থাকার জায়গা নয়।’

Top